Advertisement

পিছু হটবে না ভারত, চিনকে জবাব দিতে তৈরি Indian Army’র হাতে অত্যাধুনিক আমেরিকান রাইফেল

09:06 AM Aug 08, 2021 |

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সীমান্তে  (LAC) উত্তেজনা প্রশমন করতে আলোচনার টেবিলে মুখোমুখি ভারত-চিন। চলছে দফায়-দফায় বৈঠক। তা বলে জওয়ানদের প্রস্তুতিতে কোনওরকম কামতি রাখতে চায় না ভারতীয় সেনাবাহিনী (Indian Army)। তাই লাদাখের (Ladakh) ফরওয়ার্ড বেসে থাকা জওয়ানদের হাত শক্ত করতে তুলে দেওয়া হল অত্যাধুনিক অস্ত্র।

Advertisement

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

অত্যাধুনিক আমেরিকান রাইফেল (American Riffle) এবং সুইস পিস্তলে তুলে দেওয়া হয়েছে লাদাখে চিন (China) সীমান্তে মোতায়েন জওয়ানদের হাতে। ওয়াকিবহাল মহল বলছে, যে ধরনের রাইফেল এবং পিস্তল (Pistol) ফরওয়ার্ড বেসে পৌঁছে দেওয়া হয়েছে তা পার্বত্য অঞ্চলে যুদ্ধের অত্যন্ত উপযোগী। চিনকে চাপে রাখতেই সেনাবাহিনী যে এই অস্ত্রের সম্ভার বাড়াচ্ছে তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

[আরও পড়ুন: লক্ষ্য ২০২৪ লোকসভা নির্বাচন, ৩ দিন ধরে নতুন মন্ত্রীদের কাজ বোঝাবেন PM Modi]

সংবাদ সংস্থা এএনআই সূত্রে খবর, অত্যাধুনিক আমেরিকান সিগ সওয়ার ৭১৬ রাইফেল তুলে দেওয়া হয়েছে ভারতীয় সেনার হাতে। সঙ্গে রয়েছে সুইস এমপি-৯ পিস্তল। রাইফেলগুলির ফায়ারিং রেঞ্জ প্রায় ৫০০ মিটার। যা চিনা আগ্রাসন প্রতিহত করতে অত্যন্ত কার্যকরী। সূত্রের খবর, পূর্ব লাদাখের পরিস্থিতি উত্তপ্ত হওয়ার পর থেকে সেনার জন্য অত্যাধুনিক অস্ত্র কেনায় জোর দেয় প্রতিরক্ষামন্ত্রক। পাশাপাশি, সীমান্ত এলাকায় পৌঁছে যায় অত্যাধুনিক ভারতীয় ট্যাঙ্ক, মিসাইল সিস্টেমও। সেই সময় প্রায় দেড় লক্ষ আমেরিকান সিগ সওয়ার ৭১৬ রাইফেলের বরাত দেওয়া হয়েছিল। এ প্রসঙ্গে বলে রাখা ভাল, এই রাইফেলের ব্যবহার অত্যন্ত সহজ। দুহাতেই চালানো সম্ভব দোনলা রাইফেলগুলি। দোসর হিসেবে সুইস পিস্তল কেনার লক্ষ্য নেওয়া হয়েছিল। ইতিমধ্যে সেই অস্ত্র এসে পৌঁছে গিয়েছে বাহিনীর হাতে।

Advertising
Advertising

 

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

[আরও পড়ুন: Tripura: হামলার প্রতিবাদে রাতভর ধরনা TMC নেতৃত্বের, মহামারী আইনে গ্রেপ্তার দেবাংশু, সুদীপরা]

এদিকে সীমান্তে বেড়েছে সেনার সংখ্যাও। সন্ত্রাসদমনে পারদর্শী বাহিনীর ১৫ হাজার জওয়ানকে কাশ্মীর থেকে সরিয়ে এনে লাদাখ অঞ্চলে মোতায়েন করেছে ভারতীয় সেনা। যা ইতিমধ্যে চিনের বুকে কাঁপন ধরিয়েছে। তার উপর এই অত্যাধুনিক সমরাস্ত্র বাহিনীর হাতে আসায় লালফৌজের উপর যে চাপ বাড়ল তা বলাই বাহুল্য।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
Advertisement
Next