Advertisement

TMC in Tripura: ত্রিপুরায় তৃণমূলে যোগ দেওয়া আশিস দাসের বিধায়ক পদ খারিজ,পালটা আইনি লড়াইয়ের হুঁশিয়ারি

07:14 PM Jan 05, 2022 |

সংবাদ প্রতিদিন ব্যুরো: সদ্য তৃণমূলে যোগ দেওয়া ত্রিপুরার প্রাক্তন বিজেপি (BJP) নেতা আশিস দাসের (Ashis Das) বিধায়ক পদ খারিজ। বুধবার এই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন ত্রিপুরা বিধানসভার স্পিকার রতন চক্রবর্তী। আর স্পিকারের এই সিদ্ধান্তের তীব্র সমালোচনা করেছেন আশিস দাস। তাঁর দাবি, “উনি স্পিকার থাকার যোগ্য নন। এক চোখে জল দেখছেন তো অন্য চোখে তেল দেখছেন।”

Advertisement

বিজেপির বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগড়ে তৃণমূলে যোগ দেন বিধায়ক আশিস দাস। তার পর থেকে স্বাভাবিকভাবে ত্রিপুরায় তৃণমূলের বিভিন্ন কর্মসূচিতে দেখা যেত তাঁকে। এর পর এদিনই তাঁর বিধায়ক পদ খারিজ করে দেওয়া হয়। এর পালটা পদক্ষেপ হিসেবে আশিসবাবু আইনের দ্বারস্থ হচ্ছেন বলে খবর।

[আরও পড়ুন: COVID-19: কোভিড পজিটিভ পরমব্রত-রুদ্র-রাজ, স্থগিত কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব]

রাজভবন অভিযান কর্মসূচিতে অংশ নিয়ে আশিস দাস বলেন. “উনি (স্পিকার) যে ভাষায় আমার সম্পর্কে কথা বলেছেন, তা বলা যায় না। আমি যদি বিধায়ক থাকার যোগ্য না হই, তা হলে উনিও স্পিকার থাকার যোগ্য নন।” তাঁর আরও কটাক্ষ, “জলের মতো জামা বদল করেছেন অধ্যক্ষ।” তৃণমূল নেতার আরও দাবি, ইতিপূর্বে আরও এক বিধায়ক দল ছেড়েছিলেন। তার বিরুদ্ধে কোনও পদক্ষেপ করা হয়নি। অথচ আমার ক্ষেত্রে এটা করা হল। এর শেষ দেখে ছাড়ব।”

Advertising
Advertising

উল্লেখ্য, আশিস দাস দীর্ঘদিন ধরেই বিজেপি করছেন। আরএসএস ঘনিষ্ঠ হিসেবে পরিচিত তিনি। বিজেপির বিক্ষুব্ধ বিধায়ক সুদীপ রায় বর্মনেরও কাছের মানুষ তিনি। গত অক্টোবরে কলকাতায় (Kolkata) এসে তৃণমূল ভবনে দেখা করেছিলেন আশিস দাস। জানিয়েছিলেন, বিজেপির প্রতি মোহভঙ্গ হয়ে গিয়েছে। বরং কিছুটা অপরাধবোধেই ভুগছিলেন। তাই বিজেপি (BJP) ত্যাগের পর প্রায়শ্চিত্ত করে তবেই তৃণমূলে যোগ দেন। কালীঘাটে আদি গঙ্গার ঘাটে প্রায়শ্চিত্ত করেন। তারপর ঘাসফুল শিবিরে যোগ দেন।

[আরও পড়ুন: নিরাপত্তায় বড়সড় গলদ! পাঞ্জাবের রাস্তায় প্রায় ২০ মিনিট আটকে রইলেন প্রধানমন্ত্রী মোদি]

Advertisement
Next