নির্ঝঞ্ঝাটে ‘Work From Home’করতে চান? বিকল্প ‘Work Pods’ই হতে পারে আপনার ভরসা

03:38 PM Aug 11, 2021 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: করোনা (Coronavirus) মোকাবিলায় শারীরিক দূরত্ববিধি প্রথম শর্ত। তাই বাধ্য হয়ে দরজা বন্ধ করে ঘরবন্দি হয়ে পড়েছিলেন অধিকাংশ মানুষ। অফিস যাতায়াতও বন্ধ। কিন্তু কাজ না করলে তো আর দিন চলবে না। তাই তো বাড়িই নিমেষে হয়ে গিয়েছিল অফিস। করোনা কালে বেশিরভাগ চাকুরিজীবীরই ভরসা হালফিলের ওয়ার্ক ফ্রম হোম। কিন্তু অফিসে বসে কাজ আর বাড়িতে বসে অফিসের কাজ কি একই? না আছে ক্যান্টিনে যাওয়া কিংবা গসিপে ভরা চা বিরতি। তাই ওয়ার্ক ফ্রম হোমে একঘেয়েমি সঙ্গী কর্মরতদের। আবার তার উপর সকলের বাড়ি তো আর সমান নয়। পারিবারিক সদস্যদের সামলে নির্ঝঞ্ঝাটে ‘ওয়ার্ক ফ্রম হোম’ (Work From Home) করাও কারও কারও কাছে বড়সড় চ্যালেঞ্জে। আবার ভিডিও কলের তেমন ব্যবস্থাও অনেকের নেই। তাঁদের কথা ভেবেই নিউটাউনে খুলতে চলেছে ‘Work Pods’।

Advertisement

[আরও পড়ুন: Kolkata Metro: শুক্রবার থেকে বাড়ছে মেট্রোর সংখ্যা, কত মিনিট অন্তর মিলবে পরিষেবা?]

কী সেই ‘Work Pods’? ছোট কাচের তৈরি কিউবিকল। জায়গাটি শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত। যেখানে কাজের জন্য থাকবে বিদ্যুৎ সংযোগ এবং হাইস্পিড ইন্টারনেট। ওই কিউবিকলে বসেই আপনি মনের সুখে ঘণ্টার পর ঘণ্টা কাজ করে যেতে পারেন। প্রতি ৯০ মিনিটে ৩০ টাকা করে খরচ পড়বে। প্রয়োজনে চা, কফি কিংবা মুখের সামনে খাবারও পেতে পারেন। তবে সেক্ষেত্রে আলাদা টাকা খরচ করতে হবে।

বিদেশে ‘Work Pods’ বহুল প্রচলিত। তবে কলকাতায় ‘Work Pods’-এর বন্দোবস্ত এই প্রথম। ১৩ আগস্ট নিউটাউনে সাধারণ মানুষের জন্য ‘Work Pods’-এর পথচলা শুরু হবে। আপাতত সকাল ১০টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত কাজ করা যাবে। এ প্রসঙ্গে অতিরিক্ত মুখ্যসচিব দেবাশিস সেন বলেন, “করোনা পরিস্থিতিতে ওয়ার্ক ফ্রম হোম অনেকেই করছেন। তবে বাড়িতে কারও কারও কাজ করতে সমস্যা হয়। কারও ক্ষেত্রে বাড়ির পরিবেশ, ইন্টারনেটের সমস্যা বাধা হয়ে দাঁড়ায়। সেই সমস্ত সমস্যা থেকে সাধারণ মানুষকে মুক্তি দেবে ‘Work Pods’। এই উদ্যোগে অনেকেই উপকৃত হবেন।

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: Kolkata: দোকানিকে বাংলায় কথা বলতে বলার ‘শাস্তি’, বড়বাজারে দুই মহিলার উপর হামলা]

Advertisement
Next