Advertisement

আলোচনায় কাজ হয়নি, সীমান্তে পরিকাঠামো নির্মাণ করছে চিন! স্বীকারোক্তি রাজনাথের

09:01 AM Dec 30, 2020 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লাদাখে (Ladakh) চিনের সঙ্গে সীমান্ত সমস্যা নিয়ে ফের অশনি সংকেত দিলেন প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং (Rajnath Singh)। বুধবার রাজনাথ স্বীকার করে নিলেন যে গত কয়েক মাস ধরে চিনের সঙ্গে দফায় দফায় আলোচনার পরও কোনও অগ্রগতি হয়নি। সীমান্ত সমস্যার সমাধান হওয়া তো দূরের কথা, নিজেদের এলাকায় পরিকাঠামো তৈরির কাজ করছে ড্রাগন। তাই এখনই লাদাখ সীমান্ত থেকে সেনা প্রত্যাহার করাটা বুদ্ধিমানের কাজ নয়।

Advertisement

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

[আরও পড়ুন: ভারতের সঙ্গে লড়লে চিনের ক্ষতিই হবে, কড়া বার্তা বায়ুসেনা প্রধান ভাদুরিয়ার]

মঙ্গলবার সকালে সংবাদসংস্থা এএনআইকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে প্রতিরক্ষামন্ত্রী বলেন,”ভারত এবং চিনের (China) মধ্যে আলোচনা এখনও চলছে। তবে, এখনও এই আলোচনায় সাফল্য কিছু আসেনি। শীঘ্রই হয়তো পরবর্তী পর্যায়ের আলোচনা শুরু হবে। কিন্তু এখনও বলার মতো কোনও অগ্রগতি হয়নি। স্থিতাবস্থা বজায় আছে। আর আমার মনে হয় না, স্থিতাবস্থা বজায় থাকাটা ভাল লক্ষণ।” রাজনাথ এদিন স্বীকার করে নেন, চিন নিজেদের সীমান্তে প্রচুর পরিকাঠামো উন্নয়নের কাজ করছে। তবে, দেশবাসীকে আশ্বস্ত করে তিনি জানিয়েছেন,”চিন সীমান্তে বহু পরিকাঠামোগত উন্নয়ন করছে। আমরাও আমাদের বাহিনীর জন্য দ্রুততার সঙ্গে পরিকাঠামো উন্নয়ন করছি। কাউকে আক্রমণ করার জন্য নয়, নিজেদের জনসাধরণের সুরক্ষার জন্য।”

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

[আরও পড়ুন: ‘সংবিধানে লাভ জেহাদের কোনও উল্লেখই নেই’, বিজেপিকে তোপ ওয়েইসির]

প্রতিরক্ষামন্ত্রী এদিন স্পষ্ট করে দেন, “আত্মসম্মানে আঘাত করে এমন কোনও কিছুই ভারত সহ্য করবে না। কেউ আমাদের গরিমায় আঘাত করলে, আমরাও চুপচাপ বসে থাকব না। আমাদের ফোকাস একটাই, আমাদের দিকে কেউ কুনজরে তাকালে তাঁদের আমরা ছেড়ে দেব না। তবে, আমরা সব প্রতিবেশীর সঙ্গে শান্তিপূর্ণ সহাবস্থানে বিশ্বাস করি।” এদিন রাজনাথ স্পষ্ট ভাষায় চিনকে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন, “কোনও দেশ যদি আমাদের মাটি দখল করতে চায়, তাহলে তাদের জবাব দেওয়ার সাহস এবং ক্ষমতা দুটোই ভারতের আছে। সেটা পৃথিবীর যে কোনও দেশই হোক না কেন।”

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
Advertisement
Next