Advertisement

স্রেফ সম্পত্তির লোভে লোহার রড দিয়ে মা-বাবাকে পিটিয়ে মারল ছেলে

06:58 PM Mar 07, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নির্মম ঘটনা তামিলনাড়ুতে (Tamil Nadu)। কেবলমাত্র সম্পত্তির লোভে মা-বাবাকে লোহার রড দিয়ে পিটিয়ে মারল ছেলে। তারপর নিজেই পুলিশে গিয়ে আত্মসমর্পণ করল অভিযুক্ত। এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই রীতিমতো চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে গোটা এলাকায়।

Advertisement

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

জানা গিয়েছে, ঘটনাটি ঘটেছে তামিলনাড়ুর ধরমাপুরি জেলার ইন্দুর গ্রামে। অভিযুক্তের নাম রামস্বামী (৪০)। পেশায় সে মেকানিক। তার বাবা রামচন্দ্রনের ওই গ্রামেই এক টুকরো জমি রয়েছে। আর সেই জমি নিজের নামে লিখিয়ে নিতে বহুদিন ধরেই চেষ্টা করছিল অভিযুক্ত রামস্বামী। আর তা নিয়েই বহুদিন ধরে সংসারে অশান্তি করত। স্থানীয়রা জানিয়েছেন, গত শুক্রবার রাতে রামস্বামী মদ্যপ অবস্থায় বাড়ি ফেরে। তারপর ফের সম্পত্তি নিয়ে মা-বাবার সঙ্গে ঝামেলা শুরু করে। আর এরপরই রাগের মাথায় সামনে পড়ে থাকা লোহার রড দিয়ে বাবা পি রামচন্দ্রন (৬৫) এবং মা চিন্নারাজিকে (৬০) মারধর করে সে। ঘটনাস্থলেই দু’জন গুরুতর আহত হন। পরবর্তীতে মাথায় আঘাত লাগায় দু’জনেই মারা যান।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

[আরও পড়ুন: বিবেক দংশন! সেনার নির্দেশ মানতে নারাজ, ভারতের আশ্রয়প্রার্থী মায়ানমারের পুলিশকর্মীরা]

এদিকে, ওই দিন রাতে কেউ কিছুই বুঝতে পারেননি। পরদিন সকালে নিজেই থানায় যায় অভিযুক্ত। তারপর পুলিশকে গোটা ঘটনা জানিয়ে আত্মসমর্পণ করে সে। এরপরই ওই বাড়িটিতে গিয়ে মৃতদেহ দুটি উদ্ধার করে পুলিশ। সেগুলো পাঠানো হয় ময়নাতদন্তে। এই প্রসঙ্গে পুলিশ আধিকারিকরা জানিয়েছেন, অভিযুক্ত রামস্বামী মাদকাসক্ত ছিল। নিয়মিত মদ খেত সে। আর সেই মদের নেশাতেই সম্পত্তি নিয়ে বচসার সময় মা-বাবাকে খুন করেছে সে। আপাতত ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় মামলা দায়ের হয়েছে ওই ব্যক্তির নামে।এই ঘটনায় রীতিমতো হতবাক স্থানীয়রা। অনেকেই অভিযুক্তের কড়া শাস্তির দাবি জানিয়েছেন। ছেলে হয়ে কীভাবে একজন নিজের মা-বাবাকে খুন করে! সেই প্রশ্নও তোলেন কেউ কেউ।

[আরও পড়ুন: ‘তৃণমূল ফিরলে কাশ্মীর হবে বাংলা’, বিতর্কিত মন্তব্য করে ওমর আবদুল্লার কটাক্ষের মুখে শুভেন্দু]

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
Advertisement
Next