Advertisement

‘লাল ফাঁসে’আটকে সংবাদমাধ্যম, এবার বিবিসি’র সম্প্রচার বন্ধ করল চিন

11:43 AM Feb 12, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সংবাদমাধ্যমের উপর চিনের কঠোর নিয়ন্ত্রণ নতুন কিছু নয়। কমিউনিস্ট দেশটিতে মতপ্রকাশের স্বাধীনতা বা ‘স্বাধীন সাংবাদিকতা’ কার্যত মিথ হয়ে দাঁড়িয়েছে। এবার সেই পথে আরও একধাপ এগিয়ে বিবিসি ওয়ার্ল্ড নিউজ-এর সম্প্রচার বন্ধ করে দিয়েছে বেজিং।

Advertisement

[আরও পড়ুন: জেলে ভয়াবহ যৌন অত্যাচার! অবশেষে মুক্ত সৌদি আরবের মহিলা সমাজকর্মী]

জানা গিয়েছে, সম্প্রতি চিনের জিনজিয়াং প্রদেশে উইঘুর মুসলিমদের উপর অত্যাচার নিয়ে একাধিক খবর করেছে বিবিসি (BBC)। সেখানে চিনা প্রশাসনের নির্দেশে সংখ্যালঘু উইঘুরদের দুর্দশা ও নিপীড়নের হাড়হিম করা চিত্র তুলে ধরা হয়েছে। তাছাড়া, করোনা নিয়েও একাধিক ‘বিতর্কিত’ খবর সম্প্রচার করেছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমটি। সেখানে সাফ বলা হয়েছে, মহামারী সংক্রান্ত অনেক তথ্যই গোপন করেছে শি জিনপিং সরকার। এদিকে, বেজিংয়ের দাবি, মিথ্যা খবর প্রচার করে বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে বিবিসি। চিনা নববর্ষের দিনই এক বিবৃতি প্রকাশ করে বেজিং জানিয়েছে, সরকারি তদন্তে সাফ হয়েছে দেশের একতা ও জাতীয় স্বার্থে আঘাত হেনেছে বিবিসি। তাই দেশে তাদের সংবাদ পরিবেশন করতে দেওয়া হবে না। এদিকে, চিনের (China) এই সিদ্ধান্তে হতাশা প্রকাশ করেছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমটি। এক বিবৃতিতে বিবিসি বলেছে, “চিনের এই পদক্ষেপে আমরা হতাশ। বিশ্বে সবচেয়ে বিশ্বাসযোগ্য আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম হচ্ছে বিবিসি। আমরা নিরপেক্ষভাবে বিনা ভয়ে খবরে সত্যি তুলে ধরি।”

উল্লেখ্য, গত সপ্তাহে চিনের সরকার নিয়ন্ত্রিত টেলিভিশন চ্যানেলের সম্প্রচার নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছিল ব্রিটেন। এর এক সপ্তাহের মধ্যে তাদের দেশে বিবিসি ওয়ার্ল্ড নিউজের সম্প্রচার বন্ধ করে দিল চিন। এই ঘটনায় ব্রিটেনের বিদেশ সচিব ডমিনিক রাব জানিয়েছেন, চিনের এই পদক্ষেপ মেনে নেওয়া যায় না। তিনি টুইট করেছেন, ‘চিনের পদক্ষেপ সংবাদমাধ্যমের স্বাধীনতা খর্ব করছে। বিশ্ব জুড়ে সংবাদমাধ্যম এবং ইন্টারনেটের ব্যবহারে বাড়াবাড়ি রকমের নিষেধাজ্ঞা জারি করে রেখেছে চিন। তাদের সাম্প্রতিকতম এই পদক্ষেপ বিশ্বের সামনে চিনের ভাবমূর্তি নষ্ট করবে’।

[আরও পড়ুন: জেলে ভয়াবহ যৌন অত্যাচার! অবশেষে মুক্ত সৌদি আরবের মহিলা সমাজকর্মী]

Advertisement
Next