Advertisement

সিনোফার্মের টিকায় সবুজ সংকেত, প্রথম করোনা ভ্যাকসিন পেল চিন

02:46 PM Dec 31, 2020 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিশ্বজুড়ে করোনা ভ্যাকসিন তৈরির ইঁদুর দৌড়ে এবার প্রথম ‘সাফল্য’ পেল চিন (China)। বৃহস্পতিবার জনতার মধ্যে বিতরণের জন্য সিনোফার্মের তৈরি টিকায় ছাড়পত্র দিল বেজিং।

Advertisement

[আরও পড়ুন: ইউহানে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা সরকারি হিসেবের ১০ গুণ বেশি! সমীক্ষায় চাঞ্চল্যকর দাবি]

শীতের মরশুমে ফের করোনা প্রভাব বিস্তার করতে পারে বলেই আগেই জানিয়েছিলেন চিনা বিশেষজ্ঞরা। তাই মহামারীর তৃতীয় ঢেউ সামলাতে রীতিমতো সতর্ক প্রশাসন। এহেন পরিস্থিতিতে দেশের জনতাকে স্বস্তি দিয়ে নববর্ষের উপহার হিসেবে করোনা টিকায় ছাড়পত্র দিয়েছে শি জিনপিং প্রশাসন। তবে এই ‘সাফল্য’ নিয়ে দেখা দিয়েছে বেশ কিছু প্রশ্ন। যেহেতু সরকার নিয়ন্ত্রিত সংস্থাটির তৈরি টিকার ট্রায়াল ও ফলাফল সম্পর্কে কোনও তথ্য প্রকাশ করেনি চিন, তাই প্রতিষেধকটি কতটা নিরাপদ তা নিয়ে প্রশ্ন রয়েছে। তবে প্রতিষেধকটির প্রস্তুতকারী সিনোফার্মের শাখা সংস্থা China National Biotec Group (CNBG)-এর দাবি টীকাটি ৭৯.৩৪ শতাংশ কাজ করে। এর ফলে ভবিষ্যতে করোনা সংক্রমণের আশঙ্কা অনেকটাই কমে যাবে। জানা গিয়েছে, টিকার দুই ডোজের দাম ভারতীয় মূল্যে প্রায় ১০ হাজার টাকা হতে পারে। তবে এখনও এর সঠিক মূল্য কত তা প্রকাশ করা হয়নি। এদিকে, চিনেও ব্রিটেনের নতুন করোনা ভাইরাসের স্ট্রেন পাওয়া গিয়েছে। 

বিশ্বজুড়ে ত্রাস সৃষ্টি করেছে করোনা ভাইরাস। কয়েক কোটি মানুষ সংক্রমিত কোভিড নাইন্টিন ভাইরাসে। মৃত্যুর সংখ্যা বাড়ছে প্রতিদিন। একটা প্রতিষেধক, কিংবা নিদেন পক্ষে কোনও একটা নির্দিষ্ট ওষুধ পেলেই অদৃশ্য শত্রুকে যে জব্দ করা যাবে। ভাইরাসকে পাখির চোখ করে এগোচ্ছে ভারত, আমেরিকা, ব্রিটেনের মতো দেশ। ফলে শুরু হয়েছে টিকা তৈরির ইঁদুর দৌড়। বিশ্বের প্রথম টিকা ‘স্পুটনিক ভি’ তৈরি করেছে রাশিয়া। প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের কন্যাও সেই টিকা নিয়েছেন। এদিকে ফাইজারের টিকাও ছাড়পত্র পেয়েছে। আশার আলো ছড়িয়ে ব্রিটেনে (UK) ছাড়পত্র পেয়েছে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার (Oxford-AstraZeneca) প্রতিষেধক। এটি দ্বিতীয় সম্ভাব্য করোনা টিকা হিসেবে ব্রিটেনে ছাড়পত্র পেয়েছে। ৪ জানুয়ারি থেকে এই প্রতিষেধকে ব্যবহার শুরু হবে সে দেশে। সূত্রের খবর, দ্রুত ভারতেও এই প্রতিষেধককে ছাড়পত্র দেওয়া হবে। সংবাদ সংস্থা এএনআই সূ্ত্রে খবর, ভারতে এই টিকার প্রস্তুতকারক সংস্থা সেরাম ইনস্টিটিউটকে ছাড়পত্র দিতে ড্রাগ কন্ট্রোলার অফ ইন্ডিয়ার সাবজেক্ট এক্সপার্ট গ্রুপ বৈঠকে বসছেন।

[আরও পড়ুন: আবেদনে কর্ণপাত করলেন না ওলি, খালি হাতেই নেপাল ছাড়লেন চিনের দূতেরা]

Advertisement
Next