বর্ণবিদ্বেষের শিকার ঋষি সুনাক, অভিজ্ঞতার কথা শোনালেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী

10:52 AM Dec 03, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বর্ণবিদ্বেষের শিকার হয়েছিলেন খোদ ঋষি সুনাক। শৈশব ও কৈশোরে একাধিকবার অপ্রিয় পরিস্থিতির মুখে পড়তে হয়েছে তাঁকে। নিজের অতীতের কথা শুনিয়ে, যেখানেই বর্ণবিদ্বেষ দেখা দেবে সেখানেই তার মুখোমুখি হয়ে প্রতিরোধ করতে হবে বলে বার্তা দিয়েছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী।

Advertisement

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782001027-0'); });

অক্টোবর মাসে ইতিহাস তৈরি করে ব্রিটেনের প্রথম অ-শ্বেতাঙ্গ প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন সুনাক। তা নিয়ে জোর আলোচনা হয় ভারতীয় উপমহাদেশে। কিন্তু, বাকিংহাম প্যালেসে সম্প্রতি একটি বর্ণবিদ্বেষের ঘটনাকে ঘিরে বিতর্ক তৈরি হয়েছে। এই প্রসঙ্গে, গত বৃহস্পতিবার সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপচারিতায় ঋষি সুনাক জানান, তিনি নিজেও শৈশব ও কৈশোরে বর্ণবিদ্বেষের শিকার হয়েছেন। ৪২ বছরের সুনক বলেছেন, বর্ণবিদ্বেষ প্রতিরোধে ব্রিটেন (Britain) অবিশ্বাস্য অগ্রগতি লাভ করেছে। এখন যেখানেই বর্ণবিদ্বেষ মাথাচাড়া দেবে, সেখানেই তা প্রতিরোধে ব্যবস্থা নিতে হবে।

window.unibots = window.unibots || { cmd: [] }; unibots.cmd.push(()=>{ unibotsPlayer('sangbadpratidin'); });

[আরও পড়ুন: তালিবানের কবলে যেন না পড়ে মেয়ে, বাধ্য হয়ে এই পথ বেছে নিচ্ছেন আফগান অভিভাবকরা ]

সংবাদমাধ্যমে সুনাক (Rishi Sunak) বলেন, “রাজপ্রাসাদে ঘটা কোনও ঘটনা নিয়ে মন্তব্য করা ঠিক হবে না। তবে যা ঘটেছে তা তারা (বাকিংহাম) মেনে নিয়েছেন। এবং এর জন্য ক্ষমাও চেয়েছেন। তবে এখনও বর্ণবিদ্বেষ রয়েছে এটা ঠিক। আমি নিজেও এহেন ঘটনার শিকার হয়েছি। তবে বর্ণবিদ্বেষের মোকাবিলায় অনেক এগিয়ে গিয়েছে আমাদের দেশ। ব্রিটেনের ভবিষ্যতের স্বার্থে আমাদের এগিয়ে চলার পথে অবিরাম শিক্ষা নিতে হবে।”

Advertising
Advertising

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782050143-0'); });

উল্লেখ্য, সম্প্রতি একটি বর্ণবিদ্বেষের ঘটনাকে কেন্দ্র করে শিরোনামে বাকিংহাম প্যালেসে (Buckingham Palace)। সেখানে বর্ণবিদ্বেষের শিকার হন এক কৃষ্ণাঙ্গ মহিলা। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমে ফলাও করে সে খবর প্রকাশিত হয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়াতেও বহু নেটিজেন প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। তবে এই ঘটনার পরে রাজা চার্লস থ্রি শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নিয়েছেন অভিযুক্তের বিরুদ্ধে। বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্যের দায়ে অভিযুক্ত শ্বেতাঙ্গ মহিলাকে পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে।

[আরও পড়ুন: সামরিক ব্যর্থতায় হাতছাড়া পূর্ব পাকিস্তান, দাবি পাক বিদেশমন্ত্রী বিলাওয়াল ভুট্টোর]

Advertisement
Next