ঐতিহাসিক! দক্ষিণ এশিয়ায় প্রথম, সমলিঙ্গের বিয়ে রেজিস্ট্রি হল নেপালে

02:40 PM Nov 30, 2023 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দক্ষিণ এশিয়ায় প্রথম সমলিঙ্গের বিয়ের রেজিস্ট্রেশন হল নেপালে। মাস পাঁচেক আগে সেদেশের সুপ্রিম কোর্ট অন্তর্বর্তীকালীন বৈধতা দিয়েছিল এই ধরনের বিয়েতে। এবার আইন মেনেই রেজিস্ট্রি সারলেন এক যুগল। ৩৫ বছরের রূপান্তরকামী মায়া গুরুং ও ২৭ বছরের সমকামী যুবক সুরেন্দ্র পাণ্ডেই সেদেশের প্রথম সমলিঙ্গ দম্পতি। যদিও প্রায় মাস ছয়েক হয়ে গিয়েছে তাঁরা সংসার শুরু করেছেন। কিন্তু আইনি জটিলতায় আটকে ছিল বিয়ের রেজিস্ট্রেশন।

Advertisement

নেপালের যৌন সংখ্যালঘুদের কল্যাণ ও অধিকার সংক্রান্ত সংগঠন ‘ব্লু ডায়মন্ড সোসাইটি’র সভাপতি সঞ্জীব গুরুং ওরফে পিঙ্কি জানিয়েছেন, পশ্চিম নেপালের লামজুং জেলার দরদি পুরসভায় বিয়ে করেছেন মায়া-সুরেন্দ্র। আর তার ফলেই তৈরি হয়েছে ইতিহাস। কেবল নেপালই নয়, দক্ষিণ এশিয়ায় এটাই প্রথম এমন বিয়ে। গোটা এশিয়ায় একমাত্র তাইওয়ানে সমলিঙ্গের বিয়ে (Same-gender marriage) আইনত বৈধ। স্বভাবতই, নেপালের (Nepal) ওই যুগলের বিয়েকে এক ঐতিহাসিক মুহূর্ত বলে মনে করছেন এলজিবিটিকিউ সম্প্রদায়।

[আরও পড়ুন: তৃণমূল বিধায়ক ও ২ কাউন্সিলরের বাড়িতে CBI, শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতির তদন্তে জোর তল্লাশি]

সংবাদ সংস্থা বিবিসির সঙ্গে কথা বলার সময় মায়া গুরুং উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন। তিনি বলেন, ”অধিকারের জন্য লড়াই সহজ নয়। আমরা সেটা করেছি। আশা করি পরবর্তী প্রজন্মের জন্য লড়াইটা এতে অনেক সহজ হল।” যুগল জানিয়েছেন, তাঁরা একসঙ্গে একটি ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট খুলতে চান। কিনতে চান জমি, যার মালিকানা থাকবে দুজনেরই। কিন্তু এসবের চেয়ে বেশি করে তাঁরা চান সন্তানের অভিভাবক হতে। তবে অর্থনৈতিক ভাবে আরেকটু বলিষ্ঠ হয়ে। তার পরই তাঁরা সন্তান দত্তক নেওয়ার কথা ভাববেন।

[আরও পড়ুন: বাজার মাত করল টাটা টেক, লগ্নিকারীদের মুখে চওড়া হাসি]

Advertisement
Next