Advertisement

ভোজন-রাজনীতি! সরকারের ‘মা কিচেনে’র পালটা ‘মাছে ভাতে বাঙালি’কর্মসূচি বিজেপির

12:59 PM Feb 23, 2021 |

রঞ্জন মহাপাত্র, কাঁথি: রাজনৈতিক প্রচারে হাতিয়ার এবার ভোজপর্বও। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) মস্তিষ্কপ্রসূত তৃণমূল সরকারের ‘মা কিচেন’-এর পালটা দিতে এবার ‘মাছে ভাতে বাঙালি’ কর্মসূচি নিয়ে নামছে বিজেপি (BJP)। সোমবার পূর্ব মেদিনীপুর থেকে এই প্রকল্প শুরু হল। ওইদিন এগরায় সাধারণ মানুষের সঙ্গে মাটিতে বসে মধ্যাহ্নভোজ সারলেন বিজেপি নেতারা। স্রেফ এগরা নয়, আগামী দিনে কাঁথির বিভিন্ন এলাকায় এই কর্মসূচি চলবে।

Advertisement

ভোটের মুখে যৎসামান্য টাকায় সাধারণ মানুষের পেট ভরানোর ব্যবস্থা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। চলতি মাসে নবান্ন থেকে ভারচুয়ালি ‘মা কিচেন’ প্রকল্পের সূচনা করেছেন তিনি। বিধানসভায় বাজেটের পেশে করার সময়ে এই ‘মা’ প্রকল্পের কথা ঘোষণা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। এই প্রকল্পে শহর ও জেলার দারিদ্র্যসীমার নিচে থাকা মানুষজন ৫ টাকায় ভাত-ডাল, ডিম ও সবজি খাওয়ানো হচ্ছে। আপাতত কলকাতার ১৬ টি বরো এলাকায় ১৪৪ টি ওয়ার্ডে এই খাবার ব্যবস্থা চালু হয়েছে। প্লেট পিছু সরকার ভরতুকি দেবে ১৫ টাকা। দুপুর ১টা থেকে ৩টে পর্যন্ত ডিম-ভাত পাওয়া যাবে। মুখ্যমন্ত্রীর কথায়, ”পরীক্ষামূলকভাবে আপাতত চালু হল। পরে ধীরে ধীরে গোটা রাজ্যেই শুরু হয়ে যাবে।”

[আরও পড়ুন: ‘বারবার দেখতে আসছেন কী বেচা যায়’, মোদির বঙ্গসফরকে তীব্র কটাক্ষ অনুব্রতর]

এরই পালটা দিতে এবর নামল বিজেপিও। ৫ টাকাও দিতে হবে না। ভোটের মরশুমে সম্পূর্ণ বিনামূল্যে ভোজ। পূর্ব মেদিনীপুরের (East Midnapore) কাঁথি ও এগরায় এবার পালটা কর্মসূচি নিল বিজেপি। এদিন এগরার পানিপারুল এলাকায় আলুভাজা, ডাল, মাছের ঝোল, চাটনি সহযোগে মধ্যাহ্নভোজের আয়োজন করা হয়। বিনামূল্যে দুপুরে খাওয়াদাওয়া করলেন বহু মানুষ। তাঁদের সঙ্গে বসে খেলেন স্থানীয় বিজেপি নেতারাও। তাঁরা জানিয়েছেন, ”বাঙালি সংস্কৃতি তুলে ধরতে আগামী দিনে বিভিন্ন এলাকায় এই ‘মাছে ভাতে বাঙালি’ অনুষ্ঠান করা হবে। সকালে যেমন চায়ে পে চর্চা হয়, তেমনি দুপুরে খাওয়া-দাওয়ার ফাঁকে তেমনই চর্চা চলবে।”

[আরও পড়ুন: বিজেপি নেতার সঙ্গে ধর্মীয় অনুষ্ঠানের মঞ্চে দিব্যেন্দু অধিকারী, তুঙ্গে দলবদলের জল্পনা]

Advertisement
Next