Advertisement

সেনার ফাঁদে কাশ্মীরের আল কায়দা প্রধান জাকির মুসা

03:49 AM Aug 12, 2017 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কুখ্যাত আল কায়দা জঙ্গি জাকির মুসার সন্ধানে বিগত কয়েকদিন ধরেই অভিযান চালাচ্ছে ভারতীয় সেনাবাহিনী। অবশেষে জম্মু-কাশ্মীরের ট্রাল সেক্টরে তার হদিশ পাওয়া গিয়েছে। সেনা সূত্রে খবর, মুসা ও তার সঙ্গীরা নুরপুরার একটি বাড়িতে লুকিয়ে রয়েছে। ইতিমধ্যে এই আল কায়দা জঙ্গিকে নিকেশ করতে গোটা এলাকা ঘিরে ফেলা হয়েছে। চলছে চিরুণি তল্লাশি। সূত্রের খবর, চারদিক থেকে সেনা ঘিরে ফেলায় ইতিমধ্যে কোনঠাসা সে। তবে সেনার হাত থেকে তাকে বাঁচাতে রাস্তায় নেমে পড়েছে পাথর নিক্ষেপকারীরা। পাথর ছুঁড়ে সেনা অভিযানে ব্যাঘাত ঘটিয়ে মুসাকে পালিয়ে যেতে সাহায্য করছে তারা। সম্প্রতি কাশ্মীরের আল কায়দা প্রধান মুসাই জম্মু-কাশ্মীরের মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতিকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছে। এমনকী হুরিয়ত নেতাদের গলা কেটে ঝুলিয়ে দেওয়ার হুমকিও দিয়েছিল।

Advertisement

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

[গণতান্ত্রিক দেশে ফ্যাসিস্ট মতবাদ চাপিয়ে দেওয়া চলে না: বিদিতা]

এদিকে, সীমান্তে ফের একবার সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন পাক সেনার। শনিবার সকালে জম্মু-কাশ্মীরের মেন্ধর সেক্টরে বিনা প্ররোচনায় সীমান্তের ওপার থেকে গোলাগুলি বর্ষণ করতে থাকে পাক রেঞ্জার্সরা। ভারতীয় সেনা ছাউনি এবং সীমান্ত লাগোয়া গ্রামগুলি ছিল তাদের লক্ষ্য। ঘটনায় এখনও পর্যন্ত ৪৫ বছর বয়সের এক মহিলার মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছে। ইতিমধ্যে পাক সেনাকে পালটা জবাব দিচ্ছে ভারতীয় সেনাও।

 

জানা গিয়েছে, শনিবার ভোর সাড়ে পাঁচটা নাগাদ সীমান্তের ওপার থেকে গোলাগুলি বর্ষণ করতে থাকে পাকিস্তান। তাতেই মারা গিয়েছেন ৪৫ বছরের রাকিয়া বেগম। ঘটনা প্রসঙ্গে রিয়াজ তান্ত্রে নামে এক পুলিশ আধিকারিক বলেন, ‘মেন্ধরের আপার গোলাট অঞ্চলে পাক সেনার ছোড়া গুলিতে রাকিয়া বেগম নামে ৪৫ বছর বয়সি মহিলার মৃত্যু হয়েছে।’ সেনা সূত্রে খবর, পাক রেঞ্জার্সদের পালটা জবাবও দেওয়া হচ্ছে। এদিকে, শুক্রবার রাতে সেনা ছাউনিতে হামলা চালিয়েছে জঙ্গিরা। উত্তর কাশ্মীরের কুপওয়ারা জেলার কালাসোরে রাষ্ট্রীয় রাইফেলসের হেডকোয়ার্টারে সশস্ত্র হামলা চালায় তারা। ঘটনায় আহত হয়েছে এক জওয়ান। তাঁকে দ্রাগমুল্লার সেনা হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছে। জানা গিয়েছে, অতর্কিতে চালানো এই হামলার পরই পালটা গুলি চালায় সেনা জওয়ানরা। তারপরই অন্ধকারের সাহায্য নিয়ে পালাতে সক্ষম হয় জঙ্গিরা। আপাতত গোটা এলাকাকে নিরাপত্তার চাদরে মুড়ে ফেলা হয়েছে। জঙ্গিদের খোঁজে চলছে তল্লাশি।

 

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

গত কয়েকদিন ধরেই কাশ্মীর উপত্যকায় বেড়ে গিয়েছে জঙ্গি কার্যকলাপ। প্রায়দিনই সেনা-জঙ্গি গুলির লড়াই খবরের শিরোনামে উঠে আসছে। প্রতিবেশী দেশ পাকিস্তানের মদতেই জঙ্গিদের এই বাড়বাড়ন্ত। কিন্তু নয়াদিল্লি অভিযোগ সত্ত্বেও সেকথায় কান দিতে নারাজ ইসলামাবাদ। আর তাই জঙ্গি দমনে ইতিমধ্যে কড়া পদক্ষেপ করেছে সেনাবাহিনী। ইতিমধ্যে, চলতি বছরে জম্মু-কাশ্মীরে একশোরও বেশি জঙ্গি নিকেশ করেছে নিরাপত্তা বাহিনী। এখনও হিট-লিস্টে অনেক নাম রয়েছে। তাদের নিকেশ করার প্রক্রিয়া চলছে। চলতি বছরে জম্মু-কাশ্মীরে একশোরও বেশি জঙ্গি নিকেশ করেছে নিরাপত্তা বাহিনী। এখনও হিট-লিস্টে অনেক নাম রয়েছে। অন্যদিকে, কাশ্মীর উপত্যকায় অশান্তি বজায় রাখার জন্য লাগাতার জঙ্গি অনুপ্রবেশে মদত দিয়ে চলেছে পাক সেনা। তার জেরেই বারবার এই সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন। একথা মাথায় রেখে সীমান্তে আরও নিরাপত্তা বাড়িয়েছে সেনা। জানা গিয়েছে, এবছরের শুরু থেকে আগস্ট মাস পর্যন্ত পাক সেনা অন্তত ২৮৫ বার যুদ্ধ বিরতি চুক্তি লঘ্ঙন করেছে। ২০১৬ সালে এই সংখ্যাটা ২২৮ ছিল বলে সেনা সূত্রে খবর। চলতি মাসেও একাধিক বার সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন করেছে ভারতের প্রতিবেশী দেশটি।

[কন্যাশ্রীর সার্টিফিকেট আনতে গিয়ে শ্লীলতাহানির শিকার নাবালিকা]

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

The post সেনার ফাঁদে কাশ্মীরের আল কায়দা প্রধান জাকির মুসা appeared first on Sangbad Pratidin.

Advertisement
Next