Advertisement

অসমের পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রী হচ্ছেন হিমন্ত বিশ্বশর্মাই! সোনওয়ালকে কেন্দ্রে পদ দিতে পারে বিজেপি

08:32 AM May 09, 2021 |

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অসমের পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রী হচ্ছেন রাজ্যের সবচেয়ে প্রভাবশালী নেতা হিমন্ত বিশ্বশর্মাই (Himanta Biswa Sarma)! বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সোনওয়ালকে কেন্দ্রে কোনও পদ দিতে পারে বিজেপি। শনিবার রাত পর্যন্ত বিজেপি সূত্রে এমনটাই খবর মিলেছে। আজ রবিবার গুয়াহাটির লাইব্রেরি অডিটোরিয়ামে বিজেপির পরিষদীয় দলের বৈঠক। সেই বৈঠকে নিজেদের নেতা হিসেবে হিমন্তকেই নির্বাচন করবেন বিজেপি বিধায়করা।

Advertisement

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

সর্বানন্দ সোনওয়াল (Sarbananda Sonowal) না হিমন্ত বিশ্বশর্মা, অসমের মসনদে কে বসবেন, ভোটের আগে থেকেই তা নিয়ে দুই শিবিরের মধ্যে চাপা সংঘাত ছিল। সংঘাত মিটিয়ে পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রী স্থির করতে শনিবারই দুই প্রভাবশালী নেতাকে দিল্লিতে ডেকে পাঠানো হয়। রাজধানীতে বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডা, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ, দলের সাংগঠনিক নেতা বি এল সন্তোষ ও অন্য শীর্ষ নেতৃত্বের সঙ্গে বৈঠক করেন তাঁরা। তারপরই সোনওয়ালকে অসমের (Assam) কুরসি ছাড়ার ব্যাপারে রাজি করিয়ে ফেলেন নাড্ডা-শাহরা। সূত্রের খবর, আজ বিজেপির পরিষদীয় দলের বৈঠকে কেন্দ্রের তরফে উপস্থিত থাকবেন কৃষিমন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমর। তাঁর উপস্থিতিতেই হিমন্তকে নেতা নির্বাচন করবেন বিধায়করা। তারপরই আনুষ্ঠানিকভাবে তাঁর নাম ঘোষণা করা হবে।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

[আরও পড়ুন: কেটেছে জটিলতা, শীঘ্রই পিএম-কিষাণ যোজনার ২ হাজার টাকা পাবেন বাংলার কৃষকরা!]

উল্লেখ্য, একদিকে নাগরিক পঞ্জি (NRC) থেকে নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের (CAA) বিতর্ক। তার উপর অসমীয়া জাতীয়তাবাদের উত্থান। এহেন পরিস্থিতিতেও অসমে বিপুল জনমত পেয়ে ফের ক্ষমতায় এসেছে বিজেপি (BJP)। আর এই জয়ের কৃতিত্ব ৯০ শতাংশ ‘চাণক্য’ হিমন্ত বিশ্বশর্মার বলেই মত রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের একাংশের। তাছাড়া, অসম ছাড়া উত্তর-পূর্বের অন্য রাজ্যগুলিতেও জোট গড়ে পদ্ম ফুটিয়েছেন হিমন্ত। তাঁর কৌশলেই কার্যত সাফ হয়ে গিয়েছে কংগ্রেস। ফলে অমিত শাহর (Amit Shah) অন্যতম পছন্দের সেনাপতি তিনি। সম্ভবত সেকারণেই মুখ্যমন্ত্রিত্বের দৌড়ে খানিকটা এগিয়ে গিয়েছেন হিমন্ত। অন্যদিকে, ভোটের নিরিখে অসমে প্রভাবশালী সোনওয়াল-কাছারি উপজাতির সর্বানন্দকে চটাতে চায় না বিজেপি। বিশেষ করে কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী থাকাকালীন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে ঘনিষ্টতা বেড়েছে সোনওয়ালের। তাই তাঁকে ফের মোদির মন্ত্রিসভাতেই পাঠানো হতে পারে। আজই সবটা পরিষ্কার হয়ে যাবে।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
Advertisement
Next