Advertisement

দলের জাতীয় কার্যসমিতি থেকে বাদ! টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে বিজেপির নাম মুছলেন সুব্রহ্মণ্যম স্বামী

02:45 PM Oct 08, 2021 |

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দলের জাতীয় কার্যসমিতির কমিটি থেকে বাদ পড়লেন বিজেপি সাংসদ সুব্রহ্মণ্যম স্বামী (Subramanian Swamy)। আর তারপরই তিনি নিজের টুইটার (Twitter) হ্যান্ডলের বায়ো থেকে সরিয়ে দিলেন বিজেপি-র (BJP) নাম। যা থেকে পরিষ্কার, আগামিদিনেও গেরুয়া শিবিরের শীর্ষ নেতৃত্বের সঙ্গে প্রবীণ নেতার দূরত্ব আরও বাড়তে চলেছে। 

Advertisement

এতদিন টুইটারে নিজের অ্যাকাউন্টে সুব্রহ্মণ্যম লিখে রেখেছিলেন বিজেপি সাংসদ পরিচয়। কিন্তু বৃহস্পতিবার প্রকাশিত কমিটির নতুন তালিকা থেকে জানা যায় সেখানে নাম নেই তাঁর। এরপরই সেই পরিচয় সরিয়ে নেন সুব্রহ্মণ্যম। সেখানে এখন লেখা রয়েছে তাঁর রাজ্যসভার সাংসদ, প্রাক্তন ক্যাবিনেট মন্ত্রী কিংবা হার্ভার্ড থেকে অর্থনীতিতে পিএইচডি করা অথবা পেশাগত ভাবে অধ্যাপনার কাজের বিবরণ। কেবল নেই বিজেপির নাম।

[আরও পড়ুন: ফের পকেটে টান আমজনতার, আরও বাড়ল পেট্রল-ডিজেলের দাম]

বরাবরই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির (PM Modi) কড়া সমালোচক প্রবীণ সুব্রহ্মণ্যম। বিশেষ করে কেন্দ্রের অর্থনৈতিক নীতির বিরুদ্ধে বরাবরই সরব হতে দেখা গিয়েছে তাঁকে। গত আগস্টে টুইটারে তিনি মোদিকে তোপ দেগে লেখেন, মোদি ভারতের রাজা নন। সেই সঙ্গে দাবি করেন, কেন্দ্রীয় নীতির সমালোচনা করার অধিকার রয়েছে তাঁর। এছাড়া বিদেশমন্ত্রী এস জয়শংকর ও জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভালের বিরুদ্ধেও সমালোচনায় মুখর হতে দেখা গিয়েছে তাঁকে।

আসলে দু’বার মন্ত্রিসভার দায়িত্ব পেলেও মোদির নতুন মন্ত্রিসভায় ঠাঁই হয়নি তাঁর। সমালোচকদের দাবি, সেই কারণেই তিনি এভাবে সরব কেন্দ্রের বিরুদ্ধে। এর আগেও পছন্দের মন্ত্রক না পেয়ে সরকারের সমালোচনা করতে দেখা গিয়েছিল তাঁকে। ফলে দলের ৮০ সদস্যের কার্যসমিতির কমিটির তালিকা থেকে তাঁর বাদ পড়া খুব আশ্চর্য হচ্ছে না ওয়াকিবহাল মহল। উল্লেখ্য, নতুন তালিকায় ঠাঁই হয়নি বরুণ গান্ধী ও মানেকা গান্ধীরও। পাশাপাশি প্রহ্লাদ প্যাটেল ও রাও ইন্দরজিৎ সিংয়ের মতো কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর নামও নেই কমিটিতে।

[আরও পড়ুন: গালওয়ানের পর এবার অরুণাচল, ফের সংঘাতে জড়াল ভারত ও চিনের সেনা]

Advertisement
Next