Advertisement

এএফসি কাপের সেমিফাইনালের পর কলকাতা লিগে খেলবে ATK Mohun Bagan, আশাবাদী IFA

01:22 PM Sep 16, 2021 |
Advertisement
Advertisement

দুলাল দে: অবাক হবেন না! সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে, ২৭ সেপ্টেম্বর, সবুজ-মেরুন জার্সি গায়ে কলকাতা লিগে খেলতে পারেন রয় কৃষ্ণরা (Roy Krishna)। এটিকে মোহনবাগান খেলতে পারে, এই সম্ভাবনার কথা জানতে পেরে উৎসাহী হয়ে উঠেছেন আইএফএ কর্তারাও। মোটামুটি যা খবর, তাতে আইএসএল খেলা শুরুর আগে কলকাতা লিগে দুটো ম্যাচ খেলতে পারে হাবাসের দল। সেক্ষেত্রে দ্বিতীয় ম‌্যাচ সম্ভবত ১ অক্টোবর।

Advertisement

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1630720090-3');});

যে সময়ে মনে হচ্ছিল, মহামেডান স্পোর্টিং বাদে এই মরশুমে কলকাতা লিগে (Calcutta Football League) অন্য কোনও বড় দলের খেলার কোনও সম্ভাবনাই নেই, ঠিক তখনই লিগের চাকা পুরোপুরি ১৮০ ডিগ্রি ঘুরে গিয়ে ঠিক হয়েছে, এএফসি কাপ আর আইএসএলের মাঝে কলকাতা লিগে খেলতে পারেন রয় কৃষ্ণরা। তবে খেলতে হয় বলে খেলা নয়, রয় কৃষ্ণ, ডেভিড উইলিয়ামস, লেনি রডরিগেস, প্রীতম কোটালদের নিয়ে প্রথম দলই খেলাবেন কোচ হাবাস।

[আরও পড়ুন: জার্মান কোচকে ছাঁটাই পারফরম্যান্সে প্রভাব ফেলবে? একান্ত সাক্ষাৎকারে মুখ খুললেন সোনাজয়ী নীরজ]

লিগ শুরুর আগেই যখন সব দলের কর্তাদের সঙ্গে আলোচনায় বসেছিলেন আইএফএ (IFA) সচিব জয়দীপ মুখোপাধ্যায়, সেখানেই এটিকে মোহনবাগানের অন্যতম ডিরেক্টর দেবাশিস দত্ত জানিয়েছিলেন, কলকাতা লিগে খেলার কথা। কিন্তু এএফসির ক্রীড়াসূচির জন্য লিগে আর মাঠে নামা সম্ভব হয়নি। কেন লিগের ম্যাচগুলিতে মাঠে নামা সম্ভব হচ্ছে না, তা জানিয়ে আইএফএকে চিঠিও দেয় এটিকে মোহনবাগান। জানায়, এএফসির ক্রীড়াসূচির পাশে জাতীয় দলেও ফুটবলারদের ডেকে নেওয়া হয়েছে। এসবের মাঝে সুযোগ পেলে এটিকে মোহনবাগান (ATK Mohun Bagan) কলকাতা লিগে অবশ্যই খেলবে। আর এএফসিতে ভাল কিছু করলে বাংলার সম্মানের পাশাপাশি ভারতীয় ফুটবলেরও সম্মান বাড়বে। তাই এটিকে মোহনবাগানের সমস্যাটাও দেখা উচিত। কিন্তু সবুজ-মেরুন যে সত্যিই কলকাতা লিগে খেলার চেষ্টা করছে, তা বারবার করে আইএফএকে বুঝিয়েছে তারা। ২২ সেপ্টেম্বর উজবেকিস্তানের নাসাফের বিরুদ্ধে এএফসির ইন্টার জোন সেমিতে খেলে ২৪ সেপ্টেম্বর কলকাতায় ফিরবে হাবাসের দল। এরপর আইএসএলের (ISL) প্রস্তুতির জন্য এটিকে মোহনবাগান গোয়া যাবে ৩ অক্টোবর। সবুজ-মেরুন কর্তারা ভাবতে শুরু করেছেন, প্রতিশ্রুতিমতো এই সময়ের মধ্যে কলকাতা লিগে দল নামানোর কথা।

লিগে নীচের দিকের প্লে অফ শুরু হবে সম্ভবত ২৪ সেপ্টেম্বর। সেক্ষেত্রে, ২৪ সেপ্টেম্বর কলকাতায় এসে হাবাসের দলকে খেলতে হলে, লিগের নীচের দিকে প্লে অফেই খেলতে হবে। তাই সম্ভবত, ২৭ সেপ্টেম্বর এটিকে মোহনবাগানের ম্যাচ হওয়ার সম্ভাবনা। যেহেতু ২ অক্টোবর পর্যন্ত হাবাস কলকাতাতেই প্রস্তুতি নেবেন, তাই লিগের দ্বিতীয় ম্যাচও খেলার সম্ভাবনা রয়েছে। প্লে-অফে পর পর দুটো ম্যাচ জিততে পারলে, কোয়ার্টার ফাইনালে পৌঁছে যেতে পারে এটিকে মোহনবাগান। তারপর? সবুজ-মেরুন কর্তারা জানেন, কোয়ার্টার ফাইনালে পৌঁছলেও দলের খেলা সম্ভব নয়। তবুও দুটো ম্যাচ খেলে বোঝাতে চাইছেন, তাঁরা কখনওই কলকাতা লিগ খেলার বিরুদ্ধে নন। এএফসির (AFC Cup) খেলা না থাকলে, পুরো লিগটাই এটিকে মোহনবাগান খেলত।

[আরও পড়ুন: দ্রুত ঘর গোছাচ্ছে SC East Bengal, তৃতীয় বিদেশি হিসেবে লাল-হলুদে এলেন ক্রোয়েশিয়ান ডিফেন্ডার]

অন্য কোনও খেলা নেই বলে, মহামেডান স্পোর্টিং যেরকম পুরো লিগটাই খেলছে, এটিকে মোহনবাগানও সেরকম কলকাতা লিগ খেলার পক্ষেই। এই প্রসঙ্গে এটিকে মোহনবাগানের অন্যতম ডিরেক্টর দেবাশিস দত্ত বললেন, “আমরা তো কখনওই বলিনি, কলকাতা লিগ খেলব না। এএফসির জন্যই খেলা সম্ভব হচ্ছিল না। আর আমাদের সমস্যা অনেক আগেই আইএফএকে জানিয়েছি।” ফলে কলকাতা লিগেই রয় কৃষ্ণদের সমর্থন করার জন্য সবুজ-মেরুন সমর্থকরা তৈরি হয়ে যান।

Advertisement
Next