Advertisement

ধর্ষণে অভিযুক্ত IIT পড়ুয়া ‘রাজ্যের ভবিষ্যৎ’, আজব যুক্তি দেখিয়ে জামিন দিল আদালত

08:57 PM Aug 23, 2021 |

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ‘রাজ্যের ভবিষ্যতের সম্পদ’। এই যুক্তি দেখিয়ে ধর্ষণে অভিযুক্ত গুয়াহাটি আইআইটির এক পড়ুয়ার জামিন মঞ্জুর করল গুয়াহাটি হাই কোর্ট (Guwahati High Court)। ওই পড়ুয়ার বিরুদ্ধে সহপাঠিনীকে ধর্ষণের অভিযোগ রয়েছে। আদালত ৩০ হাজার টাকা ব্যক্তিগত বন্ড এবং সম পরিমাণ অর্থের দুই জামিনদারকে পেশ করার শর্তে অভিযুক্তের জামিন মঞ্জুর করেছে আদালত।

Advertisement

বিটেক-এর ওই পড়ুয়ার জামিনের আবেদন শোনার পর গুয়াহাটি হাই কোর্টের বিচারপতি অজিত বড়ঠাকুর বলেন, “প্রাথমিক তদন্ত ও প্রমাণের ভিত্তিতে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে মামলা দাঁড়াচ্ছে। তদন্ত সম্পূর্ণ হয়েছে। কিন্তু অভিযোগকারিণী এবং অভিযুক্ত দুজনই মেধাবী। আইআইটি গুয়াহাটিতে (IIT Guwahati) টেকনিক্যাল কোর্স করছেন। দুজনই রাজ্যের ভবিষ্যতের সম্পদ। তাই চার্জ গঠন হয়ে যাওয়ার পর অভিযুক্তকে আটকে রাখার প্রয়োজন নাও হতে পারে।”

[আরও পড়ুন: ‘লক্ষ্মীর ভাণ্ডারে’র ফর্ম ফিল আপে নয়া বিধি, জালিয়াতি রুখতে আরও কড়া রাজ্য]

গত ১৩ আগস্ট আদালত এহেন রায় দিয়েছিল। তাতে জানানো হয়েছে দুজনেরই বয়স ১৯ থেকে ২১ বছরের মধ্যে। দুজনই দুই ভিনরাজ্যের বাসিন্দা। গত ২৮ মার্চ সহপাঠিনীকে শারীকিত নির্যাতন করেছিল অভিযুক্ত। পরদিন নির্যাতিতাকে হাসপাতালে ভরতি করা হয়। পরে অভিযোগ পেয়ে ৩ এপ্রিল অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। অভিযুক্তর জামিনের আরজির শুনানি চলাকালীন হাই কোর্টের বিচারপতি বলেন, “সাক্ষ্য ও প্রমাণের তালিকা খতিয়ে দেখেছে আদালত। তার পর এটা বলাই যায় য়ে অভিযুক্ত জামিনে ছাড়া পেলে সরাসরি বা পরোক্ষভাবে প্রমাণ নষ্ট বা সাক্ষ্যদের প্রভাবিত করতে পারবেন না।”
ছবি প্রতীকী

এদিন আদালত আরও জানায়, আইনগতভাবে এটা বলা-ই যায় যে, জামিনের আবেদন বিচারের সময় আদালত অভিযুক্তের বিরুদ্ধে পাওয়া সাক্ষ্যপ্রমাণের যৌক্তিকতা বা গ্রাহ্যতা বিচার করার কথা নয়। কিন্তু জামিন দেওয়ার সময় সংক্ষেপে প্রাথমিক কারণ কিছু উল্লেখ করতে হয়।”

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: শিয়রে করোনার তৃতীয় ঢেউ, পুজোর পরেও কি খুলবে স্কুল? জানালেন মুখ্যমন্ত্রী Mamata Banerjee]

Advertisement
Next