Advertisement

‘বাংলাদেশে কেন্দ্রীয় দল গেল না কেন?’, হিন্দুত্ব নিয়ে বিজেপির বিরুদ্ধে তোপ অভিষেকের

04:48 PM Oct 26, 2021 |

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: শান্তিপুরে বিধানসভা উপনির্বাচনের প্রচারে গিয়ে বাংলাদেশ ইস্যুতে বিজেপিকে তুলোধোনা করলেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় (Abhishek Banerjee)। অভিযোগ করলেন, বাংলাদেশকে হাতিয়ার করে অশান্তি ছড়াতে চাইছে বিজেপি। প্রশ্ন তুললেন, বাংলাদেশে হিন্দুরা আক্রান্ত হলেও কেন কেন্দ্রীয় দল পাঠানো হচ্ছে না? প্রধানমন্ত্রীর চুপ থাকা নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন অভিষেক।

Advertisement

৩০ অক্টোবর দিনহাটা, শান্তিপুর, খড়দহ ও গোসাবায় বিধানসভা উপনির্বাচন (West Bengal Bypolls)। শান্তিপুরের তৃণমূল প্রার্থী ব্রজকিশোর গোস্বামীর হয়ে ভোটপ্রচারে এসেছিলেন তিনি। সেখান থেকে হিন্দুত্ব নিয়ে বিজেপির বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন অভিষেক। তাঁর কথায়, “একটা দল ধর্মের নাম ভোট চাইছে। বিজেপির রাজ্যস্তরের নেতারা বলছেন, বাংলাদেশে যা হয়েছে তার জন্য বিজেপির ভোট তিন গুণ হয়ে যাবে। গত সাত বছর ধরে কেন্দ্রে ক্ষমতায় রয়েছেন নরেন্দ্র মোদি। তাঁর দল সনাতন ধর্মের জন্য কী করেছে, হিন্দুধর্মের জন্য কী করেছে, তার তথ্য পরিসংখ্যান দিক।”

[আরও পড়ুন: GTA নির্বাচন, ত্রিস্তর পঞ্চায়েত ব্যবস্থা, পাহাড় সমস্যার স্থায়ী সমাধানের পথে মুখ্যমন্ত্রী]

এদিন ভোটপ্রচার থেকে সরাসরি প্রধানমন্ত্রী এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বিরুদ্ধে তোপ দাগেন অভিষেক। তাঁর কথায়, “ভোটের আগে তো প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশ গেলেন। জয় বাংলা স্লোগান দিলেন। এখন তিনি চুপ কেন? বাংলায় কিছু হলেই স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বারবার দল পাঠান। এখন কেন বাংলাদেশে কোনও দল পাঠানো হচ্ছে না কেন?”

২০২৪ সালে যাতে বিজেপি ক্ষমতায় না আসতে পারেন তার জন্য লড়ছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদকের দাবি, “বিজেপি আরেকবার ক্ষমতায় এলে দেশ আফগানিস্তান হয়ে যাবে। লোকে ট্রেনের চাকা ধরে চলবে।” এদিনের সভা থেকে কংগ্রেসকেও তোপ দাগেন অভিষেক। 

[আরও পড়ুন: দার্জিলিংয়ে ‘সোনার খনি’ আছে, কাজে লাগাতে হবে! বিপুল কর্মসংস্থানের হদিশ দিলেন মমতা]

Advertisement
Next