Advertisement

আনুষ্ঠানিকভাবে নতুন দল গড়ার কথা ঘোষণা ক্যাপ্টেন অমরিন্দরের! কী নাম হচ্ছে দলের?

01:49 PM Oct 27, 2021 |

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: গুঞ্জন ক্রমশ জোরাল হচ্ছিল। তিনি নিজেও মান্যতা দিয়েছিলেন সেই গুঞ্জনে। অবশেষে বুধবার সাংবাদিক সম্মেলনে পাঞ্জাবের (Punjab) প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং (Amarinder Singh) ঘোষণা করলেন তিনি নতুন দল গড়তে চলেছেন। আগামী বছরই পাঞ্জাবে বিধানসভা নির্বাচন। তার ঠিক আগেই এই নতুন দল গড়ার ঘোষণা বর্ষীয়ান রাজনীতিকের। তবে দলের নাম কিংবা অন্যান্য বিষয়ে এদিন কিছুই জানাননি তিনি। জানিয়েছেন, নির্বাচন কমিশনের অনুমতি পেলেই এব্যাপারে সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হবে।

Advertisement

এদিনের সাংবাদিক সম্মেলনে অমরিন্দর বলেন, ”হ্যাঁ, আমি নতুন দল গড়তে চলেছি। কিন্তু আমি এখনও জানি না দলের নাম কী হবে। আপাতত নির্বাচন কমিশনের নির্দেশের জন্য অপেক্ষা করছি। তাদের সঙ্গে দলীয় প্রতীক নিয়ে আলোচনা করছেন আমার আইনজীবীরা। তবে একবার দল ঘোষণা হয়ে গেলে আমি ১১৭টি আসন থেকেই লড়ব। কংগ্রেসের অনেক নেতাই আমার দলে যোগ দেবেন।”

[আরও পড়ুন: পাকিস্তানের জয়ে উচ্ছ্বসিত কাশ্মীরি তরুণীদের পাশে দাঁড়িয়ে অভিযোগকারীদের হুমকি দিল জঙ্গিরা]

এমনও শোনা গিয়েছে, কংগ্রেস ছেড়ে নতুন দল গড়তে যাওয়া অমরিন্দর, গেরুয়া শিবিরের সঙ্গে জোট তৈরি করবেন। কিন্তু এদিন তিনি জানিয়ে দেন, এবিষয়ে তেমন কোনও সিদ্ধান্ত তিনি নেননি। তাঁর কথায়, ”আমি কখনওই বলিনি বিজেপির সঙ্গে জোট করব। আমি বলেছি আসন সমঝোতার বিষয়টি বিবেচনা করে দেখব।”
নভজ্যোৎ সিধুর (Navjot Singh Sidhu) প্রসঙ্গে এদিন আক্রমণাত্মক হয়ে উঠতে দেখা যায় ক্যাপ্টেনকে। তিনি বলেন, ”সিধুর প্রসঙ্গে বলতে পারি, উনি যেখান থেকেই লড়ুন না কেন, আমরা পালটা লড়াই দেব। যেদিন থেকে সিধু আলোচনায় উঠে এসেছেন, সমীক্ষা দেখাচ্ছে কংগ্রেসের জনপ্রিয়তা ২৫ শতাংশ কমে গিয়েছে।” প্রসঙ্গত, মূলত সিধুর সঙ্গে টক্করের কারণেই দল ছেড়েছিলেন অমরিন্দর।

গত মাস থেকেই লাগাতর নাটক দেখেছে পাঞ্জাবের রাজনীতি। প্রথমে অমরিন্দর সিংয়ের ইস্তফা, নতুন মুখ্যমন্ত্রী নিয়োগ, অমরিন্দরের বিজেপি (BJP) যোগের জল্পনা এবং তার মধ্যেই প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি সিধুর ইস্তফাকে ঘিরে সরগরম হয়ে ওঠে পাঞ্জাবের রাজনীতি। সেই সময় থেকেই জল্পনা তৈরি হয়েছিল অমরিন্দর হয়তো নতুন দল গড়বেন। অবশেষে দল গড়ার ঘোষণা করলেন ক্যাপ্টেন। তাঁর এই সিদ্ধান্ত ‘গেম চেঞ্জার’ হয়ে উঠতে পারে বলেই মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল।

[আরও পড়ুন: আগামী সপ্তাহে আগরতলায় প্রথম জনসভা অভিষেকের, তার আগে TMC-BJP সংঘর্ষে উত্তপ্ত ত্রিপুরা]

Advertisement
Next