Advertisement

Afghanistan Crisis: তালিবানের দাপটে ভারতে বাড়ছে জ্বালানির দাম, আজব সাফাই বিজেপি বিধায়কের

12:19 PM Sep 06, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পশ্চিমবঙ্গ-সহ পাঁচ রাজ্যে বিধানসভা (Assembly Polls) ভোট মিটতেই গত কয়েকমাসে পেট্রল-ডিজেলের দাম হু হু করে বেড়েছে। কয়েকদিন আগেই দেশের একাধিক জায়গায় ১০০ টাকা পার করেছে প্রতি লিটার পেট্রলের দাম। গত কয়েকদিন ধরে দাম একই থাকলেও দাম কমার কোন সম্ভাবনাও দেখা যাচ্ছে না। এই ইস্যুতে কেন্দ্রের বিজেপি (BJP) সরকারের দিকে বারবার আঙুল তুলেছে বিরোধীরা।

Advertisement

কিন্তু জ্বালানির এই মূল্যবৃদ্ধি নিয়ে কথা বলতে গিয়েই আলটপকা মন্তব্য করে বসলেন বিজেপির এক বিধায়ক। তেলের দাম বাড়ছে কেন, এই প্রশ্নের উত্তরে তিনি টেনে আনলেন তালিবানকে। কর্ণাটকের হুবলি-ধারওয়াদ পশ্চিমের বিজেপি বিধায়ক অরবিন্দ বালাডের দাবি, আফগানিস্তান তালিবানের দখলে যেতেই নাকি বাড়ছে জ্বালানির দাম।

[আরও পড়ুন: দিন বদল, বিতর্কিত কৃষি আইনের বিরোধিতায় ২৭ সেপ্টেম্বর কৃষক সংগঠনের ডাকে ভারত বন্‌ধ]

সংবাদমাধ্যমকে সাক্ষাৎকার দেওয়ার সময় পেট্রল-ডিজেলের মূল্যবৃদ্ধি নিয়ে তাঁকে প্রশ্ন করা হয়। তখনই তিনি বলেন, “যেদিন থেকে তালিবান একটু একটু করে আফগানিস্তানে দখল নিতে শুরু করেছে তারপর থেকে গোটা বিশ্বে তেলের অভাব দেখা দিয়েছে আর তার জেরেই বিশ্বজুড়ে এভাবে তেলের মূল্যবৃদ্ধি হয়েছে। গোটা বিশ্বে এমন পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে বলেই ডিজেল-পেট্রল বা রান্নার গ্যাসের দাম বেড়েছে।

 

আফগানিস্তানের সঙ্গে ভারতের বাণিজ্যিক সম্পর্ক দীর্ঘদিনের। সেদেশের একাধিক প্রকল্পের সঙ্গে সরাসরি যুক্ত ছিল ভারতও। কিন্তু আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা সরার আগেই গোটা দেশ চলে যায় তালিবানের দখলে। এরপরই ভারতের সঙ্গে সেই বাণিজ্যও বন্ধ হয়ে যায়। বিপুল টাকার আমদানি-রপ্তানি বন্ধ হয়ে গিয়েছে ঠিকই, তবে দুই দেশের মধ্যে তেলের আদান প্রদান হত বলে কখনও জানা যায়নি। আর তাই বিজেপি বিধায়কের এই মন্তব্যে তীব্রই বিতর্ক দেখা দিয়েছে। প্রসঙ্গত, বিশ্বের তেল আমদানিকারী দেশগুলির মধ্যে তৃতীয় স্থানে রয়েছে ভারত। চিন এবং আমেরিকার পরেই সবথেকে বেশি তেল কেনে ভারত। আমেরিকা, নাইজেরিয়া ও কানাডা থেকেও কিছু তেল আমদানি করে ভারত। তবে তেলের মূল্যবৃদ্ধির সঙ্গে আফগানিস্তানের কোনও সম্পর্ক নেই।

[আরও পড়ুন: খুনের হুমকি দিয়ে বোনকে ‘ধর্ষণ’ বাবার! জানাজানি হতেই আত্মহত্যা দাদার]

Advertisement
Next